fbpx

|

ঘুষ নিয়ে ভাইরাল ভূমি সহকারী কর্মকর্তা নাছরীন সুলতানা

প্রকাশিতঃ ৬:৫৫ অপরাহ্ন | নভেম্বর ০১, ২০২২

ঘুষ নিয়ে ভাইরাল ভূমি সহকারী কর্মকর্তা নাছরীন সুলতানা

ত্রিশাল প্রতিনিধিঃ জমির নামজারিতে (খারিজ) প্রকাশ্যে ঘুষ নেওয়ার ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার কানিহারী ইউনিয়নের সহকারী ভূমি কর্মকর্তা নাছরীন সুলতানাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। একই সঙ্গে তার নামে করা হয়েছে বিভাগীয় মামলা।

মঙ্গলবার (১ নভেম্বর) দুপুরে উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) হাসান আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।তিনি বলেন, ওই কর্মকর্তার ঘুষ নেওয়ার একটি ভিডিও সোমবার রাতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হলে ঘটনাটি আমরা জানতে পারি।

এরপর সকালে ওই ভিডিও দেখে এবং অভিযোগ তদন্ত করা হয়। তদন্তে প্রাথমিকভাবে অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় সহকারী ভূমি কর্মকর্তা নাছরীন সুলতানাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

পাশপাপাশি তার নামে বিভাগীয় মামলা করা হয়েছে। খুব অল্প সময়ের মধ্যে ওই কর্মকর্তার স্থলে অন্য কর্মকর্তাকে দ্বায়িত্ব দেওয়া হবে।

এর আগে সোমবার (৩১ অক্টোবর) রাতে ত্রিশাল উপজেলার কানিহারী ইউনিয়নের সহকারী ভূমি কর্মকর্তা নাছরীন সুলতানা নামজারি করার জন্য এক জমির মালিকের কাছ থেকে প্রকাশ্যে ঘুষ নেন। রাতেই এ ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। এরপরই ঘটনাটি নিয়ে তোলপাড় সৃষ্টি হয় স্থানীয় প্রশাসন ও সচেতন মহলে।

ছড়িয়ে পড়া সেই ভিডিওতে দেখা যায়, এক ব্যক্তির সঙ্গে টাকার বিনিময়ে কাজ করে দেওয়ার জন্য দর কষাকষি করছেন নাছরীন সুলতানা। একপর্যায়ে হাসি মুখে টাকা হাতে নিতে নিতে তাকে বলতে শোনা যায়, ‘আপনি তো আমার চাকরি খাবেন, সামনা-সামনি যা করছেন। আমার চাকরিটা খাওয়ার জন্য আপনি লাগছেন। এই শোনেন, যেটা দেখাইছি ওইটা দিতে হবে, তাহলে আপনি কাজ পেয়ে যাবেন। ভাইঙ্গা ভাইঙ্গা টাকা দিলে এটা অয় না। আমি এইটা রাখলাম। কিন্তু দেওয়া লাগব, ওইটা না দিলে আপনার খারিজ (নামজারি) হবে না। ’

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ত্রিশালের কানিহারী ইউনিয়ন ভূমি অফিসে নামজারি করতে গিয়েছলেন ঘুষ দেওয়া সেই ব্যক্তি। দু’দিন পরে বাকি টাকা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে ওই ব্যক্তি দু’টি নামজারির জন্য ১৭ হাজার টাকা দেবেন জানালে আবার ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘না এইতা অইত না, এইতা বাংলা আলাপ কইরেন না। ’ এসময় ওই ভূমি কর্মকর্তা ক্যালকুলেটরে লিখে ওই ব্যক্তিকে টাকার অংক দেখিয়ে বলেন, ‘এটা লাগবে। ‘

তবে একাধিকবার চেষ্টা করেও এ ব্যাপারে সহকারী ভূমি কর্মকর্তা নাছরীন সুলতানার কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

দেখা হয়েছে: 35
সর্বাধিক পঠিত
ফেইসবুকে আমরা

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

প্রকাশকঃ মোঃ জাহিদ হাসান
সম্পাদকঃ আরিফ আহম্মেদ
সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী
নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া
মোবাইলঃ ০১৯৭১-৭৬৪৪৯৭
বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
ই-মেইলঃ [email protected]
অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪
error: Content is protected !!