fbpx

|

ত্রাণের দাবিতে অসহায় মানুষদের মানববন্ধন ও সড়ক অবরোধ

প্রকাশিতঃ ৮:৫১ অপরাহ্ন | এপ্রিল ১২, ২০২০

ত্রাণের দাবিতে অসহায় মানুষদের মানববন্ধন ও সড়ক অবরোধ

নীলফামারী প্রতিনিধিঃ প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস পরিস্থিতিতে ত্রাণ সামগ্রী না পেয়ে নীলফামারীর সৈয়দপুরে পৌরসভা এলাকার কর্মহীন, গরীব, অসহায় ও দুস্থ মানুষ বিক্ষুদ্ধ হয়ে উঠেছেন। শনিবার দুপুরে এসব বিক্ষুদ্ধ কর্মহীন মানুষ অবিলম্বে তাদের মধ্যে ত্রাণ বিতরণের দাবিতে সৈয়দপুর পৌরসভার পৃথক পৃথক স্থানে সড়ক অবরোধ ও মানববন্ধন করেছেন।

শনিবার(১১এপ্রিল) বেলা ১১টা থেকে সৈয়দপুর শহরের উপকণ্ঠে ঢেলাপীর উত্তরা আবাসন এলাকায় সৈয়দপুর-নীলফামারী সড়ক প্রায় দুই ঘন্টা অবরোধ করে রাখা হয়। সৈয়দপুর পৌরসভার এক নম্বর ওয়ার্ডের ঢেলাপীর উত্তরা আবাসন প্রকল্পের বাসিন্দারা সৈয়দপুর-নীলফামারী সড়কে অবস্থান নিয়ে অবরোধ সৃষ্টি করেন।

ঢেলাপীর উত্তরা আবাসনের বিভিন্ন বয়সী কয়েক শত মানুষের এ অবরোধের কারণে সৈয়দপুর-নীলফামারী সড়কে জরুরী কাজে নিয়োজিত সকল প্রকার যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। এ সময় ওই সড়কের উভয় দিয়ে ওষুধ, পণ্যবাহী ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর গাড়ী বিভিন্ন রকম যানবাহন আটকা পড়ে।

অবরোধকারীরা অবিলম্বে তাদের মাঝে ত্রাণ বিতরণের দাবি জানিয়ে সেখানে বিক্ষোভ করতে থাকেন। অবরোধের খবর পেয়ে প্রথমে আইন-শৃংখলাবাহিনীর সদস্যরা দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে অবরোধকারীদের সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়।

পরে সৈয়দপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাসিম আহমেদ সেখানে গিয়ে অবরোধ সৃষ্টিকারী উত্তরা আবাসনের লোকজনের সঙ্গে সরাসরি কথা বলেন একং তাদের কথাবার্তাও ধৈর্য সহকারে শোনেন। এ সময় তিনি ঢেলাপীর উত্তরা আবাসনের বাসিন্দাদের তালিকা করে অবিলম্বে ত্রাণ বিতরণের আশ্বাস দিলে অবরোধকারীরা তাদের অবরোধ তুলে নেয়। পরে ওই সড়কে চলাচল স্বাভাবিক হয়।

এছাড়াও সকালে ত্রাণের দাবিতে সৈয়দপুর পৌরসভার তিন নম্বর ওয়ার্ডের রসুলপুর এলাকার গরীব অসহায় কর্মহীন মানুষ শহরের চিনি মসজিদ এলাকায় মানববন্ধন করেন। এ সময় এলাকার বিভিন্ন বয়সী কর্মহীন নারী পুরুষরা চিনি মসজিদ সংলগ্ন এলাকায় সড়কের দুই পাশে দাঁড়িয়ে মানববন্ধনে অংশ নেয়।

পরে সৈয়দপুর থানা পুলিশের সদস্যরা গিয়ে মানববন্ধনে অংশ নেয়া লোকজনদের সেখান থেকে সরিয়ে দেয়। এর আগের দিন গত শুক্রবার বিকেলেও সৈয়দপুর পৌরসভার তিন নম্বর ওয়ার্ডের রসুলপুর এলাকার লোকজন ত্রাণের দাবিতে এলাকার বিক্ষোভ মিছিল করেন।

শনিবার মানববন্ধনে অংশ নেওয়া সৈয়দপুর পৌরসভার রসুলপুর মহল্লার বাসিন্দা সাথী, আরিফ, আলিম, রবিন, আরমান ডলি, সামিনা তামিম, ফয়সাল জানান, করোনা ভাইরাসের কারণে তারা সকলেই গত প্রায় পনের দিনের বেশি সময় ধরে তারা ঘরবন্দি অবস্থায় রয়েছেন। সরকারি নির্দেশ মেনে ঘরে অবস্থান করায় তারা কর্মহীন হয়ে খেয়ে না খেয়ে দিন কাটাচ্ছেন। ত্রাণের জন্য তারা প্রায় প্রতিদিনই এলাকার জনপ্রতিনিধিদের কাছে ধর্ণা দিচ্ছেন। কিন্তু জনপ্রতিনিধিরা তাদের কোন রকম ত্রাণ সামগ্রী দিচ্ছেন না।

এসময় তারা অভিযোগ করেন এলাকার গুটি কয়েকটি পরিবারকে সরকারিভাবে ত্রাণ সামগ্রী দেওয়া হলেও একই পরিবারের একাধিক সদস্যকে ওই ত্রাণ সামগ্রী দেয়া হয়। রসুলপুর এলাকার আরিফ জানান, এলাকার কাউন্সিলররা তাদের কোন ত্রাণ সামগ্রী দেননি। এ অবস্থায় তিনিসহ এলাকার দুস্থ মানুষ চরম বিপাকে পড়েছেন। কর্মহীন থাকায় তারা পরিবার সদস্যদের একবেলা খাবারেরও কোন ব্যবস্থা করতে পারছেন না।

সৈয়দপুর পৌরসভার সংশ্লিষ্ট এলাকার কাউন্সিলররা জানান, তারা ওয়ার্ড ভিত্তিক যে সামান্য ত্রাণ পেয়েছেন তা যথাযথ ভাবে বিতরণ করেছেন। আবারও বরাদ্দ সাপেক্ষে ওয়ার্ডের দুস্থ অসহায় মানুষের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করা হবে।

দেখা হয়েছে: 239
সর্বাধিক পঠিত
ফেইসবুকে আমরা

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

প্রকাশকঃ মোঃ জাহিদ হাসান
সম্পাদকঃ আরিফ আহম্মেদ
সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী
নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া
মোবাইলঃ ০১৯৭১-৭৬৪৪৯৭
বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
ই-মেইলঃ [email protected]
অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪
error: Content is protected !!