fbpx

|

নিবন্ধন করেও টিকা নেয়নি অনেকে! গৌরীপুরে দায়সারা লকডাউন

প্রকাশিতঃ ৭:২১ অপরাহ্ন | এপ্রিল ০৬, ২০২১

নিবন্ধন করেও টিকা নেয়নি অনেকে! গৌরীপুরে দায়সারা লকডাউন

গৌরীপুর (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি॥ মার্চের মাঝামাঝি সময় থেকে দেশে ক্রমবর্ধমান বৃদ্ধি পাচ্ছে কোভিড-১৯ করোনা আক্রান্তের হার ও মৃত্যুর মিছিল। ইতোমধ্যে লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে সারাদেশে।

তবে মাস্ক ব্যবহার ও স্বাস্থ্য সচেতনার তেমন কোন লক্ষ্য দেখা যাচ্ছে না সাধারণ মানুষের মাঝে। কিছুটা বাধ্য হয়ে অনেকটা দায়সারাভাবে স্বাস্থ্যবিধি মানার অভিনয় করছে মানুষ। লকডাউনেও নানা অযুহাতে বাইরে ঘুরতে দেখা যাচ্ছে অনেককে। কেউ কেউ আবার ঘর থেকে বের হচ্ছেন লকডাউন দেখার জন্য! খোলা রয়েছে প্রায় সবধরণের দোকানপাঠ ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান।

প্রশাসনের অভিযান কিংবা ভ্রাম্যমাণ আদালত বের হলে দোকানের সার্টার ফেলে ভিতরেই বসে থাকেন দোকানীরা, চলে গেলে আবার তারা খোলে দেন দোকান। এযেন এক ইঁদুর-বিড়াল খেলা!

মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) সকাল ৬টা থেকে ৯টা পর্যন্ত দেখা যায় ছাত্রছাত্রীরা কোচিং বা টিউশনে পড়তে যাচ্ছে, এসময় প্রশাসন বা পুলিশের কাউকে রাস্তায় দেখা যায়নি। পৌর এলাকায় লকডাউন কিছুটা মানলেও গ্রামের বাজারগুলোতে যেন ঈদ উৎসব! লকডাউনে অনেকেই ঢাকা, চট্রগ্রাম বা এধরনের ঝুঁকিপূর্ণ শহর থেকে ছুটিতে গ্রামের বাড়িতে এসেছেন, তারা বন্ধু-বান্ধব নিয়ে আড্ডা দিচ্ছেন বা আত্মীয়-স্বজনের বাড়িতে ঘুরে বেড়াচ্ছেন।

৫ এপ্রিল রাতে শাহগঞ্জ, ভুটিয়ারকোণা, কলতাপাড়া, শ্যামগঞ্জ, রামগোপালপুর, কোণাপাড়া গাছতলা বাজার, গোবিন্দপুর খোঁজ নিয়ে জানাযায়- মানুষ স্বাভাবিকভাবেই চা-স্টল বা দোকান পাঠে আড্ডা দিচ্ছে।

গৌরীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. রবিউল ইসলাম জানান- উপজেলায় মোট ৫৫জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন, তমধ্যে ২জন মৃত্যুবরণ করেছেন, ৪৭জন সুস্থ্য, ৫জন হোমকোয়ারান্টাইনে ও ১জন ময়মনসিংহে চিকিৎসাধীন আছেন।

তিনি আরও জানান- গত ৭ ফেব্র“য়ারি থেকে করোনার টিকা দান শুরু হলে প্রথম ডোজের শেষদিন ৫ এপ্রিল পর্যন্ত ৮ হাজার ৪২৩ জন নিবন্ধন করেছেন, টিকা নিয়েছেন ৪হাজার ৭৩৬জন। পুরুষ ২হাজার ৭১৫ ও নারী ২ হাজার ২১জন। অর্থ্যাৎ প্রায় অর্ধেক নিবন্ধনকারী টিকা গ্রহণ করেননি।

এর কারণ হিসেবে তিনি মনে করেন- করোনার টিকা নিয়ে অনেক গুজব প্রচলিত রয়েছে, তাছাড়া ১ম ডোজ নেয়ার পরও অনেকে আক্রান্ত হয়েছে যে কারণে সাধারণ মানুষ টিকা নিতে আগ্রহ হারিয়ে ফেলেছেন। ৮ এপ্রিল থেকে ২য় ডোজা টিকা প্রদান কার্যক্রম শুরু হবে। প্রথম ডোজের শেষদিন ৫ এপ্রিল হলেও ২য় ডোজের পাশাপাশি ১ম ডোজ চালু থাকার ইতোমধ্যে ঘোষণা দেয়া হয়েছে। প্রথম ডোজের ৮ সপ্তাহ পর দ্বিতীয় ডোজ টিকা নিতে হয়।

দেখা হয়েছে: 72
সর্বাধিক পঠিত
ফেইসবুকে আমরা

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

সম্পাদকঃ আরিফ আহম্মেদ
সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী
আলী আরিফ সরকার রিজু
নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া
বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
ই-মেইলঃ [email protected]
অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪