fbpx

|

ময়মনসিংহ জেলা রেটেড দাবালীগ-২০২১ পুরস্কার বিতরণ

প্রকাশিতঃ ৮:৩৬ অপরাহ্ন | ফেব্রুয়ারী ০৮, ২০২২

ময়মনসিংহ জেলা রেটেড দাবালীগ-২০২১ পুরস্কার বিতরণ

এম এ আজিজ, ময়মনসিংহ ॥ মুজিব শতবর্ষ ময়মনসিংহ জেলা রেটেড দাবালীগ-২০২১ এর পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত হয়েছে। ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে পুলিশ লাইন্সে মঙ্গলবার প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ময়মনসিংহ রেঞ্জ ডিআইজি (পদোন্নতি প্রাপ্ত অতিরিক্ত আইজিপি) ব্যারিস্টার মোঃ হারুন অর রশিদ পুরস্কার বিতরণ করেন।

পুলিশ সুপার মোহাঃ আহমার উজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ এনামুল হক, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ও মহানগর আওয়ামীলীগের সভাপতি এহতেশামুল আলম। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ফাল্গুনী নন্দীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে এছাড়া উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ হাফিজুর রহমান, দাবা উপ-কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান, সুব্রত দাস নিশিত প্রমুখ।

প্রধান অতিথির বক্তব্য রেঞ্জ ডিআইজি ব্যাস্টিার হারুন অর রশিদ বলেন, খেলা শারিরীক ও মানষিক উৎকর্স বৃদ্ধি করে। খেলার মাঠ গরম রাখতে পারলে মাদক সহ অন্যান্য অপরাধ থেকে যুব সমাজকে রক্ষা করা সম্ভব। যুবকদের মাঠে আনার দায়িত্ব নিতে হবে।

হকি ক্রিকেটলীগ শুরুর তাগিদ দিয়ে দাবা খেলা সম্পর্কে তিনি বলেন, দাবা আন্তর্জাতিক খেলা। এই খেলা শারিরীক নয় মেধার খেলা। এতে বুদ্ধি বাড়ে। বুদ্ধিভিত্তিক এই দাবা খেলাকে তার গৌরবের অবস্থানে আনতে ক্রীড়াপ্রেমি আইজিপি ডঃ বেনজীর আহমেদ নিজে দায়িত্ব নিয়েছেন। যাতে দাবা খেলায় আবারো প্রাণচাঞ্চল্য ফিরে আসে।

সভাপতির বক্তব্যে পুলিশ সুপার বলেন, বাংলাদেশ এগিয়ে গেছে। মাদকমুক্ত যুব সমাজ এবং আগামী দিনের ভবিষ্যত যুবদেরকে সঠিক পথে পরিচালিত করতে খেলাধুলার বিকল্প নেই। খেলাধুলা সুষ্ঠ জীবনবোধের চর্চা এনে দেয়। এর মাঝে দাবা খেলা আরো বেশি। ক্রীড়াঙ্গন সুখকর থাকলে যুব সমাজ সুষ্ঠ অবস্থায় থাকবে।

দাবা টুর্ণামেন্ট সম্পর্কে পুলিশ সুপার বলেন, দাবা হলো মেধাভিত্তিক খেলা। দাবা খেলা দেশের মান মর্যাদা বাড়িয়েছে। শুধুমাত্র পৃষ্ঠপোষকতার অভাবে দাবা পিছিয়ে পড়েছে। ঐতিহ্য বহনকারী জনপ্রিয় এই দাবা খেলাকে আবারো পুর্বের অবস্থায় ফিরিয়ে আনতে বাংলাদেশ পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ডঃ বেনজীর আহমেদ দায়িত্ব নিয়েছেন। পুলিশের পক্ষ থেকে সকল ধরণের সহযোগীতা ও পৃষ্ঠপোষকতা অব্যাহত থাকবে বলে দাবি করে তিনি দাবারো, সংগঠক সকলকে ধন্যবাদ জানান।

এর আগে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ এনামুল হক বলেন, দক্ষ জনশক্তি গড়তে হলে সুস্থ্য জাতি গড়তে হবে। এ জন্য ক্রীড়াকে গুরুত্ব দিতে হবে। তাহলেই আগামীদিনের ভবিষ্যত ছাত্র ও যুব সমাজ সঠিক পথ থেকে বিচ্যুত হবে না। জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক এহতেশামুল আলম বলেন, দাবা খেলোয়ার তৈরীর চারণভুমি ময়মনসিংহে এখন থেকে দাবা প্রতিযোগীতা নিয়মিত করা হবে।

উল্লেখ্য ১৪ দলে ৭৫ জন খেলোয়াড় প্রতিযোগীতায় অংশ নেন। এর মাঝে ৩০ রেটেড ছিল। প্রতিযোগীতায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন দি চেস কিং। রানার আপ দাবা ত্রয়ী অগ্রজ স্মরণ সংঘ এবং তৃতীয় স্থান অর্জন করেছে মোহামেডান স্পোটিং ক্লাব ময়মনসিংহ। টুর্ণামেন্টে সেরা দাবারু হয়েছেন সুব্রত বিশ্বাস, সর্ব কনিষ্ঠ দাবারু ছিলেন রায়হান রশিদ মুগ্ধ।

এছাড়া সর্ব প্রবীণ দাবারু ছিলেন মোঃ আব্দুল গফুর এবং ময়মনসিংহে সেরা দাবা ক্লাব সংগঠক দাবা ত্রয়ী অগ্রজ স্মরণ সংঘের সভাপতি ওসমান গনি।

দেখা হয়েছে: 60
সর্বাধিক পঠিত
ফেইসবুকে আমরা

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন
অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

প্রকাশকঃ মোঃ জাহিদ হাসান
সম্পাদকঃ আরিফ আহম্মেদ
সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী
নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া
মোবাইলঃ ০১৯৭১-৭৬৪৪৯৭
বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
ই-মেইলঃ [email protected]
অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪
error: Content is protected !!