fbpx

|

রাতের অন্ধকারে যুবলীগের ‘পকেট’ কমিটি বির্তকের শেষ নেই!

প্রকাশিতঃ ১১:৪৯ অপরাহ্ন | অক্টোবর ২২, ২০২২

জেলা প্রতিনিধি, লক্ষ্মীপুর: লক্ষ্মীপুরের রামগতি উপজেলার চর বাদাম ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক কমিটি বিলুপ্ত না করেই রাতের অন্ধকারে ফেসবুকে ‘পকেট’ কমিটি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। কতদিনের জন্য এ কমিটি অনুমোদন দেওয়া হয়েছে তাও উল্লেখ করা হয়নি। এ কমিটির জন্য বর্ধিত সভা কিংবা সম্মেলন না করায় ক্ষিপ্ত সাবেক কমিটির নেতাকর্মীরা।

এদিকে উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক (ভিপি) মেজবাহ উদ্দিন হেলাল কমিটির বিষয় নিয়ে কোন কথা বলতে চাচ্ছেন না। উল্টো এ ব্যাপারে জানতে চাইলে, যুবলীগ নেতা হেলাল সাংবাদিকদের ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে উঠেন।

নাম প্রকাশ না করা শর্তে রামগতি যুবলীগের ৩ জন নেতা জানায়, উপজেলার কমিটি মেয়াদোত্তীর্ণ। এরপর তাদের সাংগঠনিক কোন কর্মকান্ড দৃশ্যমান নয়। ইউনিয়ন কমিটির নেতারাও ঝিমিয়ে পড়েছে। অধিকাংশ কমিটিই মেয়াদোত্তীর্ণ অবস্থায় পড়ে আছে। কোন প্রকার বর্ধিত সভা করা হচ্ছে না।

২০১৮ সালে চরবাদাম কমিটির সাবেক সভাপতি সেলিম উদ্দিন হাদিস আওয়ামী লীগের পদে জন্য প্রার্থী ছিলেন। এতে তিনি মৌখিকভাবে পদত্যাগ করেন। আওয়ামী লীগের পদ না পাওয়ায় তাকে ওই পদে পুনর্বহাল করা হয়। এরপর চরবাদাম যুবলীগের কমিটি নিয়ে কোন বর্ধিত সভা বা সম্মেলন হয়নি। নতুন কমিটি দিতে হলে বর্তমান কমিটি বিলুপ্ত করা হয়। কিন্তু উপজেলা কমিটি তা করেনি। নতুন কমিটির মেয়াদকালও উল্লেখ করা হয়নি। নিজেদের পকেট ভারি করতে উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক হেলাল ও যুগ্ম-আহবায়ক শাহ মোহাম্মদ রাকিব এ পকেট কমিটি দিয়েছে।

দলীয় সূত্র জানায়, ১৮ অক্টোবর রাতে ফেসবুকে চরবাদাম যুবলীগের কমিটি দেখা যায়। কিন্তু যারা কমিটি অনুমোদন দিয়েছেন ওই দুই নেতার ফেসবুকে তা পোষ্ট করা হয়নি। এতে ইউনিয়নের সাবকে কমিটির সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহিমকে সভাপতি ও মাইনুদ্দিন ভূঁইয়াকে সাধারণ সম্পাদক করে ১০ সদস্যে (আংশিক) পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা হয়।

চরবাদাম ইউনিয়ন যুবলীগের সদ্য সাবেক কমিটির সভাপতি সেলিম উদ্দিন হাদিস বলেন, কমিটির ব্যাপারে আমাকে কিছুই জানানো হয়নি। আমার কমিটি বিলুপ্তও করা হয়নি। নতুন যে কমিটি দেওয়া হয়েছে তার জন্য বর্ধিত সভা কিংবা সম্মেলনও হয়নি। কমিটির মেয়াদকালও উল্লেখ করেননি উপজেলা যুবলীগ।

জানতে চাইলে মুঠোফোনে রামগতি উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক সোয়েব সেকান্দর অপরাধ বার্তাকে জানান, চরবাদাম ইউনিয়নের নবগঠিত যুবলীগের কমিটিতে আমার সাক্ষর নেই। আহ্বায়ক ও যুগ্ম আহ্বায়ক কিভাবে কমিটি দিয়েছে, আমার জানা নাই। কমিটি দেওয়ার পর থেকে বির্তকের শেষ নেই। এ কমিটি বেশিদিন টিকবে না।

উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহবায়ক শাহ মোহাম্মদ রাকিব বলেন, অনেকদিন আগে ওই কমিটি বিলুপ্ত করা হয়েছে। এছাড়া সাবেক কমিটির সভাপতি হাদিস পদত্যাগ করেছেন। এজন্য নতুন কমিটি দেওয়া হয়েছে। তবে হাদিসের পদত্যাগ পত্র ও কমিটি বিলুপ্তি কোন চিঠির বিষয়ে সদুত্তর দিতে পারেননি তিনি।

এ ব্যাপারে রামগতি উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক মেজবাহ উদ্দিন হেলাল ক্ষিপ্ত হয়ে সাংবাদিকদের বলেন, আপনারা চরবাদামের কমিটি নিয়ে পড়ে আছেন কেন, বিষয়টা কি? আমি জেলা পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হয়েছি, সে বিষয়ে জানতে না চেয়ে, বারবার যুবলীগের কমিটি নিয়ে জিজ্ঞেস করেন কেন? এ বলেই তিনি লাইন কেটে দেন। এরপর একাধিকবার কল করলেও তিনি তা রিসিভ করেননি।

দেখা হয়েছে: 106
সর্বাধিক পঠিত
ফেইসবুকে আমরা

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

প্রকাশকঃ মোঃ জাহিদ হাসান
সম্পাদকঃ আরিফ আহম্মেদ
সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী
নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া
মোবাইলঃ ০১৯৭১-৭৬৪৪৯৭
বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
ই-মেইলঃ [email protected]
অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪
error: Content is protected !!