fbpx

|

নড়াইলে অতি বৃষ্টির কারণে প্রায় ৮’শ গলদা চিংড়ি চাষী হতাশ!

প্রকাশিতঃ ৮:১৫ অপরাহ্ন | জানুয়ারী ০৪, ২০১৮

উজ্জ্বল রায়, নড়াইল জেলা প্রতিনিধিঃ

প্রায় ৮’শ গলদা চিংড়ি চাষী মারাত্মক ক্ষতির সম্মুখ হয়েছে। অতি বৃষ্টির কারণে চিংড়ির স্বভাবিক চাষ ব্যহত হয়েছে।পাশাপাশি চাষীদের ক্রয়কৃত চিংড়ি মাছের রেণু ভাল না হয়ায় চিংড়ি বড় হয়নি বলেও অভিযোগ রয়েছে। ফলে মূলধনের প্রায় ৫০শতাংশ পর্যন্ত লোকসান গুনছে চাষীরা।

জানা যায়, নড়াইলের কালিয়া উপজেলায় কোন মাছের হ্যাচারি না থাকায় চিংড়ির রেণু ক্রয় করতে যেতে হয় বরিশাল এবং ভোলায়। ফলে দীর্ঘ পথ পাড়ি দিয়ে আসা রেণু ১০থেকে ২০শতাংশ মারা যায় প্রতি বছর। কিন্তু এবছর বেশি পরিমানে চিংড়ির রেণু মারা গেছে। চাষীদের ধারণা ক্রয়কৃত ৭৫শাতাংশ রেণু মারা গেছে । তারপরও যে মাছ পাওয়া যাচ্ছে তারও দাম কম । প্রতি কেজি মাঝারী গ্রেডের চিংড়ি ৫-৬ শত টাকা এবং ছোট গ্রেডের চিংড়ি ৪-৫ শত টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

সরেজমিনে এবিষয় একাধিক চাষীর সাথে কথা বলে আরও জানা যায়, উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা চাষীদের কোন খোঁজ খবর নেয় না। অফিসে গেলে তাকে প্রায়ই পাওয়া যায়না। পেলেও ভালো কোন পরামর্শ দেয়া হয়না। মাছের ঘের পরিদর্শনে তো তিনি আসেন না বলে একাধিক অভিযোগ পাওয়া গেছে।

নড়াইলের কালিয়া উপজলোর চাঁচুড়ি গ্রামের তমজিদ বিশ্বাস  জানান,‘আমার দু’টা ঘেরে দেড় লাখ রেণু ছেড়েছিলাম। কিন্তু মাত্র ৪০-৪৫ হাজার মাছ পেয়েছি। মাছের বৃদ্ধিও কম। তাই ২০-৩০টা চিংড়িতে ১কেজি হচ্ছে। যেখানে ৮-১৫টি চিংড়িতে ১কেজি হবার কথা। বেশী দামে খাদ্য কিনে মাছ উৎপাদনের পর কম দামে মাছ বিক্রি করতে হচ্ছে। আমার প্রায় ৫ লাখ টাকা লোকসান হবে বলে ধারণা করছি।’কৃষ্ণপুর গ্রামের রেণু ব্যবসায়ি মদন বিশ্বাস বলেন,‘রেণুতে কোন সমস্যা ছিলো না। আসলে এবছর অতি বৃষ্টির কারণে মাছের বৃদ্ধি ভালো হয়নি।’

এ প্রসঙ্গে নড়াইলের কালিয়া উপজলো মৎস্য কর্মকর্তা রাজিব রায় অপরাধ বার্তাকে জানান,‘আমার বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ সত্য নয়। চাষীদেরকে আমরা সব ধরণের পরামর্শ দিয়ে থাকি। বৃষ্টির কারণে মাছের বৃদ্ধি না হবার কোন কারণ নেই। তবে রেণু মারা গিয়েছে। এছাড়া বর্তমানে বিশ্ববাজারে চিংড়ির চাহিদা কম। তাই দরপতন হয়েছে।

দেখা হয়েছে: 598
সর্বাধিক পঠিত
ফেইসবুকে আমরা

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

প্রকাশকঃ মোঃ জাহিদ হাসান
সম্পাদকঃ আরিফ আহম্মেদ
সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী
নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া
মোবাইলঃ ০১৯৭১-৭৬৪৪৯৭
বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
ই-মেইলঃ [email protected]
অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪
error: Content is protected !!