fbpx

|

ময়মনসিংহে পঞ্চম স্ত্রীকে নির্যাতনে হত্যা, স্বামী আটক

প্রকাশিতঃ ৭:০২ অপরাহ্ন | জানুয়ারী ০৬, ২০১৮

মোঃ কামাল, ময়মনসিংহঃ

ময়মনসিংহ নগরীর কপিক্ষেত এলাকায় স্বামীর নির্যাতনে মারা গেছেন এক গৃহবধূ। নিহত গৃহবধুর নাম সাফিয়া আক্তার (২২)। এ ঘটনায় স্বামী সাগর মিয়াকে (২৮) আটক করেছে পুলিশ।

শনিবার ( ৬ জানুয়ারী ) মধ্যরাতে এ হত্যার ঘটনা ঘটেছে। পরে সকাল সাড়ে ১১টার দিকে পুলিশ এসে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মমেক হাসপাতাল মর্গে পাঠিছে। নিহতের পিতা নবাব আলী প্রশাসনের ও কাছে সাংবাদিকদের মাধ্যমে তার মেয়ে হত্যার বিচার চেয়েছেন।

নিহতের পরিবার ও প্রতিবেশিরা জানান, গত চার মাস আগে সদর উপজেলার পরানগঞ্জ ইউনিয়নয়নের মীর কান্দাপাড়া গ্রামের নওয়াব আলীর কন্যা সাফিয়া আক্তারের সাথে বিয়ে হয় নগরীর চরপাড়া কপিক্ষেত এলাকার আবুল হোসেনের ছেলে সাগর মিয়ার সাথে।

এদিকে বিয়ের দু’মাস পর সাফিয়া গর্ভবতী হলে হাসপাতালে নিয়ে গর্ভপাত করান তার স্বামী সাগর মিয়া। তখন থেকেই তার শারীরিক অবস্থা ভাল যাচ্ছিল না।

পরে শুক্রবার ( ৫ জানুয়ারী ) রাত নয়টার সময় সাফিয়াকে নির্যাতন করেন তার স্বামী। পরে গোপনে সাফিয়াকে রাত দু’ইটার দিকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন । পরে সাফিয়ার মরদেহ বাড়ি আসে সাগর । তবে শনিবার ( ৬ জানুয়ারী ) বিকালে সাফিয়া তার পিত্রালয়ে যাওয়া কথা ছিল ।

সকালে তার বাবা নওয়াব আলী মেয়ের সাথে দেখা করতে গেলে জানতে পারেন সে মারা গেছে। তখন সে প্রতিবেশিদের ডেকে জড়ো করেন । এরপর স্থানীয়রা সাগরকে আটক করে পুলিশকে খবর দেয়। সাফিয়া সদর উপজেলার পরানগঞ্জ ইউনিয়নের মীরকান্দা পাড়া গ্রামে নওয়াব আলীর মেয়ে। তিনি নগরীতে থেকে দিন মজুরের কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করেন বলে জানা গেছে।

ময়মনসিংহে পঞ্চম স্ত্রীকে নির্যাতনে হত্যা, স্বামী আটক-Aporadh-Barta

ময়মনসিংহে পঞ্চম স্ত্রীকে নির্যাতনে হত্যা, স্বামী আটক-Aporadh-Barta

খবর পেয়ে নগরীর ৩নং পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ ওসি মনিরুল ইসলাম ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে মমেকক হাসপাতাল মর্গে পাঠান।এসময় সাগরকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে যান পুলিশ।

ওসি মনিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে অপরাধ বার্তাকে জানান, আমরা গৃহবধুর মৃত্যুর খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহতের স্বজন ও প্রতিবেশিদের বক্তব্য নিয়েছি। নিহতের স্বজন ও প্রতিবেশিরা পুলিশকে জানিয়েছেন, সাগর এর আগেও আরও চারটি বিয়ে করেছিল। সাগরের নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে সব স্ত্রীরা পালিয়েছে বলে জানান মনির।

দেখা হয়েছে: 427
সর্বাধিক পঠিত
ফেইসবুকে আমরা

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

প্রকাশকঃ মোঃ জাহিদ হাসান
সম্পাদকঃ আরিফ আহম্মেদ
সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী
নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া
মোবাইলঃ ০১৯৭১-৭৬৪৪৯৭
বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
ই-মেইলঃ [email protected]
অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪
error: Content is protected !!