fbpx

|

মুন্ডুমালায় বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে সফল সেভেন স্টার

প্রকাশিতঃ ১২:০৬ পূর্বাহ্ন | জানুয়ারী ১১, ২০১৮

সারোয়ার হোসের,তানোর প্রতিনিধিঃ

রাজশাহীর তানোরে মুণ্ডুমালায় বঙ্গবন্ধুর স্ব-দেশ প্রত্যাবর্তন দিবসের আলোচনা সভায় জনসমদ্রে রুপ নিয়েছে। উপজেলা আ”লীগ আয়োজিত মুণ্ডুমালা গরু হাট কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে পড়ে । বুধবার দুপুরের পর থেকে উপজেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে হাজার হাজার নারী পুরুষ দলীয় নেতাকর্মীরা উপস্থিত হওয়া শুরু করেন।

বিকাল ৪টার আগেই গরু হাটের মাঠ পূর্ণ হয়ে পড়ে । সভা শুরুর পর আসতেই থাকে নেতাকর্মী থেকে শুরু করে সাধারন জনগন । মাঠে জায়গা না পেয়ে আশপাশের বাড়ির ছাদ ও মুণ্ডুমালা বাজারে বসে থেকে অথিতিদের বক্তব্য শুনেন জনতা।

উপজেলা আ”লীগ সভাপতি মুণ্ডুমালা পৌর মেয়র আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনায়ন প্রত্যাশী গোলাম রাব্বানীর সভাপতিত্বে বিশাল জনসমুদ্রে প্রধান অথিতির বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় আ”লীগ জাতীয় কমিটির সদস্য মনোনায়ন প্রত্যাশী আলহাজ্ব একে এম আতাউর রহমান , বিশেষ অথিতির বক্তব্য রাখেন সাবেক অতিরিক্ত আইজিপি বীর মুক্তিযোদ্ধা জেলা কমিটির প্রধান উপদেষ্টা মতিউর রহমান, জেলা আ”লীগ সহ সভাপতি এডঃ মুকবুল খান, জেলা আ”লীগ প্রচার প্রকাশনা সম্পাদক গোদাগাড়ী পৌর মেয়র মনিরুল ইসলাম বাবু, গোদাগাড়ী উপজেলার সাবেক সভাপতি জেলা আ”লীগ সিনিয়র সহ সভাপতি বদিউজ্জামান রবু মিয়া , জেলা আ”লীগ সহ সভাপতি এডঃ আব্দুল ওহাব জেমস, দেওপাড়া ইউপির চেয়ারম্যান আকতারুজ্জামান প্রমুখ ।

সাবেক আইজিপি মতিউর রহমান তার বক্তব্যে সাংসদকে উদ্দেশ্য করে বলেন ভয়ভীতি দেখিয়ে নেতাকর্মীদের বাধা দিয়ে আটকানো যাবে না । বঙ্গবন্ধুর স্ব-দেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালনে আলোচনা সভা আজ জনসমুদ্রে রুপ নিয়েছে। আপনি দেখে যান আপনার দিন শেষ । এলাকার উন্নয়ন না করে করেছেন নিজের উন্নয়ন। হয়েছেন মাদক চোরাচালের গড ফাদার। জামাত বিএনপি পরিবার থেকে একাধিক ব্যক্তিকে চাকুরী দিয়ে করেছেন কোটি কোটি টাকার নিয়োগ বানিজ্য। আপনি বঙ্গবন্ধুর স্ব-দেশ পালনে বাঁধা প্রয়োগ করছেন। আপনি কি জামাত বিএনপির এজেন্ড বাস্তবায়নে ব্যস্ত।

আ”লীগের সাংসদ হয়ে আমাদের সভায় আপনি বাধা দেন । আপনার কোন গোয়েন্দা থাকলে তাকে জিজ্ঞেস করুন আজকের সভার ব্যাপারে। হাজার হাজার নেতাকর্মীর উপস্থিতি প্রমান করে আপনার প্রতি আর কোন আস্থা নেই । আপনি রাজনীতি ছেড়ে ব্যবসা করেন। আপনার রাজনীতির দিন শেষ । আপনাকে অনেক ছাড় দেয়া হয়েছে আর নই । কেন্দ্রীয় কমিটিকে অনুরোধ করব মাঠ জরিপ করে এআসনে মনোনায়ন দিবেন।

সভার সভাপতি মনোনায়ন প্রত্যাশী মেয়র রাব্বানী বলেন আমি মনোনায়নের দাবি তুলার কারনে যে কোন সভা করলেও আমাকে জানানো হচ্ছেনা। বাধ্য হয়ে প্রথমে মুণ্ডুমালা স্কুল মাঠে সভা করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয় । কিন্তু স্কুল কমিটিকে আপনি মাঠ দিতে নিষেধ করেন । তাই ধুলার মধ্যে গরু হাটে দিবসটি পালনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করি। রাজনীতিতে হুংকার ভয়ভীতি দেখিয়ে কোন লাভ হয়না । সেটা প্রমান হয়েছে বঙ্গবন্ধুর স্ব-দেশ প্রত্যাবর্তন দিবসের আলোচনা সভা জনসমুদ্রে রুপ নিয়ে। মেয়র বক্তব্য দিতে উঠা মাত্র পুরো মাঠ জয়বাংলা জয়বঙ্গবন্ধু স্লোগানে মুখোরিত হয়ে উঠে ।

৭মার্চের ঐতিহাসিক ভাষনের পর যার জন্ম না হলে বাংলাদেশ নামক রাষ্ট্রের জন্ম হতনা । ভাষনের পরে পাকিস্তানি হানাদারেরা বঙ্গবন্ধুকে গ্রেপ্তার করে তাদের কারাগারে নিয়ে গিয়ে বলেছিলেন বাংলাদেশ চান না মৃত্যু চান। এমন কি কারাগারে কবর খনন করা হয়েছিল বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করার জন্য। কিন্তু তিনি সাব জানিয়ে দিয়েছিলেন আমাকে মৃত্যুর ভয় দেখিয়ে কোন লাভ আমার বাংলার দেশ স্বাধীন করেই ছাড়বে । দেশ স্বাধীনের ১৯৭২ জালের ১০ জানুয়ারি বঙ্গবন্ধু দেশে ফিরে ছিলেন সে দিন বাঙ্গালী জাতীর স্বাধীনতা পূর্ণতা লাভ করে ।

জেলা যুবলীগের যুগ্ন সাধারন সম্পাদক ইয়াসিন আরাফাত সৈকতের পরিচালনায় আরো উপস্থিত ছিলেন উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি জাইদুর রহমান , সাবেক যুবলীগ নেতা শরিফুল ইসলাম , পৌর আ”লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক সাইদুর রহমান ,উপজেলা যুবলীগ সাংগঠনিক সম্পাদক কাউন্সিলর নাহিদ হাসান , কাউন্সিলর হাবিবুর রহমান , সাবেক মুকুল , ছাত্রলীগ নেতা রুবেল।

এসময় সভায় প্রায় ২০ হাজার ২৫ হাজারের মত নেতাকর্মী ও সাধারন জনগন উপস্থিত ছিলেন। এছাড়া সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আল হাসানুল রবিন সরকারের আয়োজনে তানোর গোল্লাপাড়া হাট চত্বরে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালন করা হয়েছে ।

দেখা হয়েছে: 437
সর্বাধিক পঠিত
ফেইসবুকে আমরা

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

প্রকাশকঃ মোঃ উবায়দুল্লাহ
সম্পাদকঃ আরিফ আহম্মেদ
সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী
নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া
মোবাইলঃ ০১৯৭১-৭৬৪৪৯৭
বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
ই-মেইলঃ [email protected]
অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪